৩টি কবিতা

তফায়্লে তফাজ্জল



গর্ব আর চেতনার শীষে

গর্ব আর চেতনার শীষে দোল খায়
অবিনাশী প্রাণের ঐতিহ্য।
রক্তের উৎসর্গে লব্ধ ভাষা
ছড়িয়ে পড়েছে উঁচু থেকে উচ্চতায়, দিবালোকে।

এক আঁটি কঞ্চির শিক্ষাকে বানিয়ে মাথার তাজ
অনেকেই রাজপথে কাটিয়ে ছিলো বারুদ সময়
ফাটিয়ে ফেটিয়ে দিতে গা’র বলে গড়া নগ্নবৃত্ত
কিংবা বাঁকা কল্পনার এক পেশে স্তম্ভ ।

ঝড়ো মনোবৃত্তি দেখে
গ্লাস ফাটা ভাঁজ টের পেয়েছিলো বিপক্ষ অন্তর।

বায়ান্ন এগিয়ে –
সীমানা পেরিয়ে বনে বনে,
পথের দু'ধারে, শহরে-বন্দরে ফুটাচ্ছে ফাগুন, ঝরাচ্ছে আগুন,
খুঁচিয়ে জাগিয়ে দিচ্ছে মুখ থুবড়ে পড়া অনুভূতি
প্রচারের সমূহ মাধ্যমে।

মুখে কুলুপ আঁটার বিপরীতে এর
ডানা মেলা উচ্চারণ।



অমধুর উপদ্রবে

ভেজালের অমধুর উপদ্রবে হ-য-ব-র-ল'র রাজত্ব এখন।

সময়ের এমন দুষিত বায়ুর তরঙ্গে আকন্ঠ ডুবিয়ে
বিচারিক সরল রেখায় ঠিক থাকতে ক্ষমতা হারায় নাক।
যে কারণে, শিক্ষা সতর্কীকরণে সুচালো জিজ্ঞাসা,
খাঁটি শব্দটিও কষ্টির ঘষায় কতোটা অমেকি!

ভাবা যায়, ফলের রসেও মিশে একাকার নিরব ঘাতক ?

লিচু আম বা জামের স্বাদে, তরমুজের লালে, ডাবের পানিতে
ঘাপটি মেরে বসে আছে জনস্বাস্থ্য হুমকির রসদ।
নিত্য পণ্যের বাজারে অনেক আগেই
ঘোষণা হয়েছে, ক্রেতা-বিক্রেতার বিশ্বাসের ফাঁসি ।


দুধ বা সবজিতে ছদ্মবেশ ধরে আছে আঁতে ঘাই প্রবণতা;
বৃক্ষে পাখি বা কাঠবিড়ালিও স্প্রে আতঙ্কে।

নিষ্কৃতির লক্ষণ এবার
খড়ের গাদায় সোনামুখী সুঁই খোঁজার চেয়েও
দু'ইঞ্চি জটিল, দশ ইঞ্চি ক্লান্তিকর।
এ সবে আড়মোরা চাই দিকে দিকে - আর চাই
দায় মহলের ঘি-তোলা আঙ্গুল।




ইদানীং সেই রাত

রাতটা বিড়াল পায়ে চৌকাঠ ডিঙিয়ে ঘরে ঢোকে,
দিনের ব্যস্ততা কাঁধ থেকে জেনে, না জেনে নামিয়ে
সঙ্গে করে দু'ফোঁটা ফুরসত।

চোখ আর চায় না সময় দিতে – বিছানার ডাকে
সাড়া দেয় আপাদমস্তক।
অনেক কথাই মন থেকে সটকে পড়ে,

নিস্তব্ধতা যেন কাশফুল বুলিয়ে দেয় অনুকূলে।

এর মাঝে বাইরে থেকে উড়ে আসে যদি
কিছু মিষ্টি ধ্বনি : ব্যাঙ বা ঝিঁঝির সুললিত ভাষা,
মনে হবে, আবৃত্তির কাঙ্ক্ষিত লহরী
ক্লান্ত কানে দিয়ে যাচ্ছে মন্ত্রের পরশ, সারা গায়ে
শৈশবের সেই দাদী-মার দোলনা সুখ।

আর কেউ ভাববে, ঘুম পাড়ানির গল্পরসে পুষ্টির ব্যঞ্জনা।

ইদানীং সেই রাত মারমুখী ছোরার মুখে,
সেই রাত, মাইরে তোলা বন্দুকের নলে জড়োসড়ো!
এবার তো বুঝলে, রজনীর দেহে কাঁটা দিয়ে ওঠা
চোখের কুশল ?

ব্যাঘ্র শব্দে বুনো সুন্দরীর মতো পড়িমরি দৌড়ে আছে ঘুম।

আপনার মতামত জানান