সুজেট জর্ডনের স্মৃতিতে

সায়ন্তন মাইতি
একটা আগুন জ্বলতে থাকে। বছর আসে বছর ঘুরে
ধর্ষিতারা নাম পায় না। অনুকম্পা কলাম জুড়ে।

একটা আগুন রাস্তা পেরোয়। জীর্ণ সমাজ এফোঁড় ওফোঁড়
শাসনযন্ত্র দাপিয়ে হাঁটে ধর্ষিতাদের জ্যান্ত কবর।

একটা আগুন আঁচ খুঁজে নেয় সম্মিলিত প্রতিবাদে।
লোকলজ্জায় কালচে কাপড়, কোন ফতোয়ার দিব্যি তাদের?

একটা আগুন হলকা ছোঁড়ে। বেবাক দ্যাখে স্বাধীনতা
ধর্ষিতা হয় স্বনামধন্য। প্রতিবাদের নতুন কথা।

একটা আগুন প্রশ্ন তোলে, বিশুদ্ধতার রংটা কেমন?
ধর্ষিতাকে বাইরে ফেলে রেস্টুর্যােণ্টে কনস্টিপেশন।

একটা আগুন দেখিয়ে দিল, সাহস নেভায় দুর্বিপাক।
বিচার চেয়ে ক্লান্ত যারা, মানুষ তাদের সঙ্গে থাক।

একটা আগুন নিভল শেষে। নিজেই পুড়ল অনেকখানি।
শরীর তো নয় কলঙ্কিত, তবুও তারই অঙ্গহানি।

তবুও আগুন জ্বলতে থাকে। মফস্বলে-শহর-গ্রামে।
‘সাজানো’ সব চরিত্র-দোষ। যাক বিকিয়ে সস্তা দামে।

আপনার মতামত জানান