ম্যাগির আত্মকথা

সুশোভন

 



‘আমিই সেই ম্যাগি ...’

যা কলা ! কি শুরু করেছেন বলুন তো ? লজ্জায় তো বাড়ি থেকে বেরনো দায়! হার্টথ্রব থেকে দু-মিনিটে একবারে খলনায়ক বানিয়ে ফেললেন মশাই আমাকে ? আমি বলতে, হলদে প্যাকেটে পেঁচানো ম্যাগি। ব্রততী দি হলে না হয় গলা কাঁপিয়েই বলতাম... ‘আমিই সেই ম্যাগি’। ব্যস্ত শহরের রাস্তার ধারের ৫১টি প্লেটে এলেবেলে হয়ে ছড়িয়ে থেকে, চামচে ধারে ছাদে বাম্পারে ঝুলতে ঝুলতে, আপনাদের পেটে গিয়ে বুভুক্ষু ভারতের খিদে মেটানোর বৈদিক যুগ থেকে ললিপপ যুগের একমাত্র বিশ্বস্ত সেনাপতি। ‘আমি সেই ম্যাগি’। এদেশের সবাই তো আর গোমাতার, পবিত্র আর গর্বিত সন্তান নয়। ধম্ম-কম্মের অপকর্মে সবাই তো আর শরীরের মেদ, জরুরি পুষ্টি বা আবশ্যিক ক্যালসিয়াম কোনটাই ব্যয় করেনা। বিয়ের সময়ও ঘরে-বাইরের গুরুজনদের ইমোশনাল ব্ল্যাক-মেলর বিরুদ্ধে, দীর্ঘ পানিপথের লড়াইয়ের কাঠখড় পুড়িয়ে, অবশেষে কেউ কেউ সামাজিকতাটুকু রেখে, আগুনের সামনে ২ ঘণ্টা বসে মন্ত্র পড়ার মত রিগিংওচিত কিছু ধর্মীয় (অ)-লৌকিকতা বাদ দিতে সক্ষম হয়। তাঁরাই আবার জন্মদাত্রী মাতৃদেবীর ভাবাবেগের স্থিতিস্থাপকতা রক্ষার্থে ও অকল্যাণকর চিন্তায় মাথা হেজে যাবার বিধিসম্মত সতর্কীকরণ উপলব্ধি করেই, ‘অ-কংগ্রেস অ-বিজেপি’ সরকার গড়তে জয়া-মায়া-মুলায়ম’দের সাথে নীতিগত আপোষ করেন। আর তাঁরাই নিজের বাঙালি সত্ত্বাকে অপমান করে, বিয়ের দিন দুপুরে, ভাত বর্জিত লাঞ্চে, দু-মিনিটে বানানো মায়ের হাতের ম্যাগি সাঁটায়! সেই আমি, সেই ম্যাগিই কিনা আজ ভেজাল ? আমার এরকম অকালপ্রয়াণে কাশ্মীর থেকে কন্যাকুমারীর জগতজোড়া লোক যখন, বেকার জীবনে আর ‘ল্যাদ’ ছাড়া খাবার মত আদেও কিছু পড়ে রইলো কিনা, অফ ফর্মের রোহিত শর্মা ব্যাট করে দু-মিনিটে ফিরে আসতে আসতে গ্যাসে আর কিছু এর সহজে রান্না করা যাবে কিনা, দেশের ৯০% ভদ্রমহিলা (এবং আমার এক ডাক্তার বন্ধু) নিজেদের আর আদেও ‘কুকিং স্পেসালিস্ট’ বলে দাবি করতে পারবে কিনা কিম্বা লাসিথ মালিঙ্গা চুলের ছাঁটও আমার কারনে ব্যানের আওতায় পড়বে কিনা সেই সব নিয়ে দুশ্চিন্তাগ্রস্ত .. তখন আপনি অন্তত ঐ অবলা দম্পতিদের ভবিষ্যতের কথাটা একবার ভাবুন। অনেক সাধের একটাই বিয়ে। সেটাও কিনা করতে গেলো 'ভেজাল' ম্যাগি সেদ্ধ খেয়ে ... ?

চিরশত্রু সতীন ?
আপনি কি চিৎকার করে মজা পান ? হিন্দি গানের সুরে সিটি মারতে পারেন ? আপনি কি বিয়ে বাড়িতে 'উলু' স্পেশালিষ্ট ? কিম্বা শাঁখ বাজানোর এক্সপার্ট ? কানের গোঁড়ায় শিঙা ফুঁকুন, ধুমধাড়াক্কা রিপাবলিক ডে-তে সবাই মিলে ড্রাম পিটুন, কালীপূজোয় বাজি ফাটিয়ে লোকের পিলে চমকে দিন, দিস-টাইম ফর আফ্রিকা'র ফুটবলে ভুভুজেলা কে মিশিয়ে দিন, ধর্ম-কম্মের দোহাই দিয়ে অন্যের কানের লতিতে মাইক বেঁধে গাঁতিয়ে কেত্তন শোনান, মনুমেন্টের ঘাড়ে মাইক বেঁধে গাঁকগাঁক করে আজান পড়ুন.. ঐ ডবল ডিমের অমলেটের ওপর ল্যাদ ছিটিয়ে স্যানক্স করা ভদ্রলোকের ডিমদের, ঘুম থেকে তুলে, আড়মোড় ভাঙ্গিয়ে দেখিয়ে দিন, এই যুগটা অযথা শব্দ করারই, যুগটা হুজুগের, যুগটা নিজের ঢাক নিজে পেটানোর, যুগটা বিজ্ঞাপনের, যুগটা ভেজালের।
এযুগে রাহুল দ্রাভিডের কভার ড্রাইভ থেকে আলিয়া ভাটের ডিম্পল, পাউরুটি থেকে শুরু করে হানি সিং'র টাট্টু, কবির বিবেক থেকে আপনার স্বপ্ন সবকিছুই বিক্রি হয়,সবকিছুরই মার্কেটিং হয়, ব্র্যান্ড অ্যাম্বেসেডার হয়, আর সবকিছুতেই ভেজাল হয় ...তাই শুধু ম্যাগির ভেজালেই মাথায় আকাশ ভেঙ্গে ফেললে কি করে চলবে বলুন? প্রধানমন্ত্রী সুদিনের গপ্পো লিখে, ৫৮ পাতার ভেজাল ইস্তেহারে, ৩১%'র মন জয় করলেন, মুখ্যমন্ত্রী সিঙ্গুরের ৪০০ একর জমি ফেরতের ভেজাল স্বপ্ন দেখালেন, আম্মা আর ভাইজানরা আইনের ভেজাল ঝোলা গুড়ে দেশবাসী কে লবডঙ্কা দেখালেন, ইশরত জাহানের ‘পটল তোলা’ রহস্যের নেপথ্য নায়ক এখন গেরুয়া তিলক কেটে পৃথিবীর বৃহত্তম রাজনৈতিক দলের টোল ফ্রি নাম্বারে মিসকল কুড়িয়ে বেড়াচ্ছেন--- ভেজাল নেই বলছেন? এই যে রাজনীতির কেষ্ট-বিষ্টুরা কাছা-খুলে, লজ্জার মাথা সাধ্যমত চিবিয়ে খেয়ে, নিয়ম করে শোবার আগে চুনকালি মেখে, টিআরপি মেপে, ভাগ্য NH 16’র মত সুপ্রশস্ত বুঝে একটা দল থেকে আর একটা দলে জাম্প দিচ্ছেন, খেলার-কত্তারা মেসির বাঁ পায়ের ডজের কেরামতিতে বা আই পি এলে গেইলের লম্বা চুলে ঝুটি বেঁধে ঘুষের অম্বল সামলাতে সুপ্রিম কোর্টের আম পাচক চিবচ্ছেন, প্লেয়ার গুলো অবধি বুকির কাঁধে চেপে আপনার আবেগে পা রেখে মা কালির মোট জিভ কেটে হার-জিত ‘কাল্টিভেট’ করছে, ডাক্তার গুলো নার্সিংহোমের সাথে চক্রান্ত করে আপনার শরীরে রোগ ‘ম্যানুফ্যাকচার’ করে অপারেশন বাগিয়ে গুচ্ছের টাকায় হামাগুড়ি দিচ্ছে ---- ভেজাল কোথায় নেই মশাই ? আপনার বৌয়ের লম্বা মুখের থুতনি ধরে ভেজাল মেশানো আবেগে ভরে আপনি তাকে ‘চাঁদের’ মত বলেননি ? বৌ আপনাকে ভেজাল মেশানো বাড় খাওয়ালে নিজেকে ঋত্বিক রোশন মনে হয়নি? এই যে নতুন প্রজন্মের শৈশবে নৈতিকতার ব্যাঙ্গমা-ব্যাঙ্গমী হারিয়ে যায় ভেজাল সর্বশক্তিমান স্পাইডারম্যান, সুপারম্যান দের অ্যানিমেশনে, তার বেলা? যখন অতিনায়ক সাদাচামড়ার অরণ্যদেবের কাছে নতজানু হয়ে প্রার্থনা জানাতে হয় নেংটি পড়া মন্ত্রমুগ্ধ কালো মানুষদেরই, সাদা চামড়ার ম্যানড্রেকের দেহরক্ষী হতে হয় কালো চামড়ার কাউকেই কিম্বা যখন আপনার ছেলে-মেয়ে আয়রনম্যানদের হাতে ভাত খায় --- বর্ণ বৈষম্যের ভেজাল থাকে না বলছেন? আর আমার, ম্যাগির ভেজালেই কি আপনার বিশ্বজোড়া অমৃত-সুধায় টপাস করে এক ফোঁটা চোনা মিশে গেল? হে কপার লবণের চোবানো চকচকে সবুজ রঙের উচ্চে-বেগুন-পটল-মুলো সাঁটানো, বাজারে চক পাউডার মেশানো খোলা গুঁড়ো মশলা রানা গাঁতানো, পনিরের নামে স্টার্চ উদরস্থ করে স্টেরিলাইজড হাবভাব নেওয়া ভারতবাসী ... শুধু গোবিন্দভোগ চাল আর কাঁচকলা সেদ্ধই কি তাহলে স্বাস্থ্যকর ? শুধু ম্যাগির ভেজাল কি তোমাদের চিরশত্রু সতীন ?

টেস্ট ভি হেলথ ভি ...
তাহলে কি আপনি টানা ১৩ দিন ফেয়ার লাভলী মাখলে ফটাস করে কাকেশ্বর কুচকুচে থেকে অ্যাঞ্জিলিনা জোলি হয়ে যান ? নিয়মিত ডাভ সাবান মাখলে নিজের ত্বককে ফর্মুলা ওয়ানের সার্কিটের মত মসৃণ মনে হয় ? নিয়মিত হরলিক্স দুধে গুলে দিলে আপনার সন্তানের গুরু মস্তিষ্কের ক্যামিকেল লোচা'র তীব্রতা তরান্বিত হয় ? আপনি কি তাহলে বিশ্বাস করেন ছায়া প্রকাশনীর প্রশ্ন-বিচিত্রাই আসলে মেধার বিকল্প ? ঘরে সার্ফ এক্সেল কিনে এনে আপনি 'দাগ আচ্ছা হ্যা' বলে কাদায় গড়াগড়ি দেন ? আপনি কি মনে করেন সচিন তেন্ডুলকারের ৫১টা সেঞ্চুরির 'সিক্রেট' আসলে বুস্টের 'এনার্জি' ? আপনার মনে হয় কিনলে'র "বিন্দুতে বিন্দুতে সততা"র জল খেয়েই রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর আজ ‘সারদার প্রতীক’? হিরো হন্ডার উপর চেপে বসলে আপনি দেশের হার্ট-বিটের ই সি জি করতে পারেন? পরীক্ষার হলে সমাকলনের অঙ্ক আটকে গেলে আপনি কি 'দিমাগ কি বাত্তি' জ্বালানোর জন্য পকেট থেকে বের করে মেন্টস চোষেন? আপনিও কি বিশ্বাস করেন ১০ টাকা লেসের প্যাকেটে চিপসের হওয়াতেই পেট ভরে? আচ্ছা আপনিই বলুন .. কোন ডিওড্রেন্ট গায়ে মাখলে যদি আপনার প্রতিবেশীদের ঘরের মেয়েরা এসে একসাথে আপনাকে জাপটে ধরে সেটা কি আপনার পক্ষে আদেও স্বস্তিদায়ক হবে ? অমিতাভ-মাধুরী আর প্রীতি জিন্টা আমার প্যাকেট হাতে নিতে দাঁত ক্যালিয়ে 'টেস্ট ভি হেলথ ভি'... বলে দিলেই আমি দু-মিনিটেই নির্ভেজাল হয়ে যাবো? তেমন হলে তো অত্যধিক অলঙ্করণের দায়ে শেক্সপিয়ার আর রবিঠাকুরেরও কারাদন্ড দিতে হয় মশাই। আরে বাবা, আফটার অল বুদ্ধিজীবী সেলিব্রেটি দের নৈতিকতাও থাকতে হবে এমন মাথার দিব্যি আপনি আদেও দিয়েছেন কি ? সবাই তো আর কঙ্গনা রানাউত নয়, যে ফেয়ারনেস ক্রিমের ব্র্যান্ড অ্যাম্বেসেডারের অফার নাকচ করে নিজের পেটে নিজেই লাথি মেরে জিরো ফিগার বানানোর ধান্দা খুঁজবে ... সাধে তো আর আমার বাপ, নেসলে, গুণমান পরীক্ষায় মাত্র ১৯ কোটি আর বিজ্ঞাপন বাবদ বিজ্ঞাপনে ৪৪৫ খরচা করেনি।

আইসোটোপ
ফসলের দাম না পাওয়া কৃষক গুলো যখন বুনো ওল খেয়ে গলায় দড়ি নিচ্ছে, বাঘা তেঁতুলরা তাদের জমি লুঠ করে হাম্বা-নি দের বেঁচে দিচ্ছেন, কই, কেউ তো জনস্বার্থের মামলা কপচাচ্ছে না, বেড়ে মর্ডান ছেলে-মেয়েরা চিজ বেসড পিৎজা কিম্বা ম্যাক ডি'র বার্গার খুঁটে খেতে খেতে, কথার মাঝে ইংলিশ গুঁজে ম্যাক্সিম দিয়ে হলিউডের পানমশলা চিবিয়ে সত্যজিৎ-ঋত্বিক-উত্পল কে ইউটোপিয়া বানাচ্ছে, ইচ্ছে হলেই নায়ক-নায়িকারা লাদাকের চোখ জুড়ানো সৌন্দর্যে নেচে গেয়ে বেড়াচ্ছেন, ফাটাকেষ্ট এক-ঘুষিতে ভিলেনের ভুঁড়িওয়ালা চামচাকে পাশের দোকানের হাঁড়িকলসি সহ উল্টে দিচ্ছেন, মাসাকুলার প্রেমিক, সুন্দরী নায়িকা কে প্রেম নিবেদন করলেই, রিমঝিম বৃষ্টি শুরু হচ্ছে, সাইকেল নিয়ে শাহরুখ স্করপিও কে টেক্কা দিচ্ছেন, এককালের ফেলুদা হনুমান চল্লিশার বিজ্ঞাপন করছেন, রাত্রি হলেই খবরের চ্যানেলে জ্যোতিষীরা আপনার চাকরীর জন্য, মহার্ঘ্য ভাতার জন্য, মেয়ের বিয়েতে পণের টাকা জোগাড়ের জন্য, সারদার টাকা ফেরত পাবার জন্য হাতের দশটা আঙ্গুলে দশটা রত্ন গুঁজে দিচ্ছেন... আর আপনি নিশ্চিন্ত মনে তালি দিচ্ছেন, লুঙ্গি তুলে, কোমরে বেঁধে, মুখে আঙ্গুল পুরে সিটি মারছেন ..
এরপরেও বলবেন ভেজাল শুধু আমাতেই ? ভেজাল শুধু ম্যাগিতেই ? কি যে বলেন স্যার ? ল্যাবে গিয়ে কেমিস্ট্রি শিখে আজিনোমোতোর কেমিক্যাল ফর্মুলা বোঝার আগে বরং আপনার বোধবুদ্ধির আইসোটোপ ল্যাবরোটারি তে নিয়ে গিয়ে টেস্ট করে দেখুন ... আমি নিশ্চিত, মাত্রাতিরিক্ত সোডিয়াম গ্লুটামেট আর বিপজ্জনক লিডের নমুনা রয়েছে আপনার বিবেকেও ..

আপনার মতামত জানান